বাঞ্ছারামপুরে পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি চালিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে বিএনপির সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনায় পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি চালিয়েছে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার বিকালে কুমিল্লা সেনানিবাসের এমআর চৌধুরী মাঠে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সেতুমন্ত্রী এ কথা জানান।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে ছাত্রদল কর্মীরা পুলিশের ওপর আগে হামলা করেছে। পুলিশের পোশাক ধরে টানাহেঁচড়া করেছে ও অস্ত্র কেড়ে নিয়েছে। তখন পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি চালিয়েছে।

উল্লেখ্য, গত শনিবার বিকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে উপজেলা সদরের মোল্লাবাড়ির সামনে বিএনপি নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়। এ সময় নয়ন মিয়া (২২) নামে এক ছাত্রদল নেতা গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হন। নয়ন উপজেলার চরশিবপুর এলাকার রহমত উল্লাহর ছেলে। তিনি উপজেলার সোনারামপুর ইউনিয়ন ছাত্রদলের সহ-সভাপতি ছিলেন।

জাতীয় নির্বাচন প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, আমরা নির্বাচন করব। এ নির্বাচনে জনগণ ভোটের মাধ্যমে যে রায় দেবেন আমরা সেই ফল মেনে নেব।

তিনি আরও বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে পরিচিত। তার মতো নেতা না থাকলে এ দেশে এত উন্নয়ন হতো না, এটা প্রমাণিত সত্য।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, এ সরকারের আমলে সেনাবাহিনী উন্নয়ন ও আধুনিকতায় ব্যাপক কাজ করছে। সেনাবাহিনীর সহায়তায় পদ্মা ব্রিজ, কর্ণফুলী টানেল, বান্দরবান দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় উন্নতমানের রাস্তাঘাটসহ দেশের অনেক মেগা প্রজেক্টের কাজ হয়েছে।

এর আগে কুমিল্লা সেনানিবাসে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনাসহ নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে সশস্ত্র বাহিনী দিবস উদযাপন অনুষ্ঠান হয়। এতে মুক্তিযোদ্ধা, শহিদ পরিবারসহ অতিথিদের অভ্যর্থনা জানানো হয়।

অনুষ্ঠানের শুরুতে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহিদ পরিবারের সদস্যদের হাতে সম্মাননা ও উপহার তুলে দেওয়া হয় এবং কেক কাটা হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- মো. আবুল হাসেম এমপি, ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত এমপি, রাজী মোহাম্মদ ফখরুল এমপি, নাছিমুল আলম চৌধুরী এমপি, ফেনীর নিজাম উদ্দিন হাজারী এমপি, নোয়াখালীর এইচএম ইব্রাহীম এমপি, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বদরুদ্দোজা ফরহাদ হোসেন এমপি, সংরক্ষিত নারী আসনের এমপি আঞ্জুম সুলতানা সীমা প্রমুখ।

 

 

Facebook Comments